আগামী নির্বাচন কত সালে হবে? ১২ তম জাতীয় সংসদ নির্বাচন কবে।

আগামী নির্বাচন কত সালে হবে? দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন কবে।

শুরু হয়েছে বাংলাদেশ সরকার নির্বাচনের তোরজোর। ইদানীং পত্রিকায় চোখ বুলাইলেই দেখবেন জাতীয় সাংসদ নির্বাচনের খবর। আওয়ামী লীগ / বিএনপি সহ সকল দলই প্রস্তুতি শুরু করেছে আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের।

গুগল সার্চ করে অনেকেই জানতে চান। আগামী নির্বাচন কত সালে হবে? আগামী নির্বাচন কবে? দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন কত সালে। জাতীয় নির্বাচন ২০২২। সরকারি নির্বাচন কত সালে হবে।

.
জাতীয় সংসদ নির্বাচন কত বছর পরপর হয়?

 

বাংলাদেশের সংবিধান অনুযায়ী জাতীয় সংসদ নির্বাচন ৫ বছর পর পর অনুষ্ঠিত হয়।

দ্বাদশ জাতীয় সাংসদ নির্বাচন

 

বাংলাদেশ স্বাধীনতা লাভ করেছে ১৯৭১ সালে। দেশ স্বাধীন হবার পর থেকে এ পর্যন্ত বাংলাদেশে মোট ১১ বার জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সে হিসেবে আগামী নির্বাচন হবে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন।

বাংলাদেশের প্রথম নির্বাচন কত সালে হয়?

অনেকেই জানতে চান বাংলাদেশের প্রথম নির্বাচন কত সালে হয়? বাংলাদেশ ১৯৭১ সালে স্বাধীনতা লাভ করলেও বাংলাদেশে প্রথম নির্বাচন হয় ৭ই মার্চ ১৯৭৩ সালে । নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ৩০০টি আসনের মধ্যে ২৯৩টি আসনে জয় লাভ করে সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে। এবং সরকার গঠন করে।

আগামী নির্বাচন কত সালে হবে? ১২ তম জাতীয় সংসদ নির্বাচন কবে হবে?

 

আগামী নির্বাচন কত সালে হবে এই প্রশ্নটি এখন সবার মুখে মুখে। সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতায় আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন ২০২৩ সালের ডিসেম্বর মাসে হবার কথা। তবে বর্তমান সরকারের ইচ্ছে ২০২৪ সালের জানুয়ারী মাসে ১২তম জাতীয় সংসদ নির্বাচন আয়োজন করার।

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]নির্বাচনের সঠিক তারিখ এখনো ঘোষণা হয়নি[/box]

বাংলাদেশের প্রথম নির্বাচন কমিশনার কে?

 

বাংলাদেশের প্রথম নির্বাচন কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন বিচারপতি এম ইদ্রিস।

 

১৩ তম জাতীয় সংসদ নির্বাচন কবে হবে।

 

১২ তম সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবার পর নিয়ম অনুযায়ী ৫ বছর পর ১৩ তম সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। সে হিসেবে ২০২৯ সালে ১৩ তম জাতীয় সাংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবার কথা৷ তবে কোন কারনে ১২ তম সংসদ ভেঙে গেলে আগাম নির্বাচন হলে সেটা যখন হবে তখন বলা যাবে।

 

আগামী নির্বাচন কবে

এক নজরে জাতীয় সাংসদ নির্বাচন সমূহঃ

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]প্রথম জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৭৩ সালের ৭ মার্চ স্বাধীন দেশে সর্বপ্রথম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে ৩০০টি আসনের মধ্যে ২৯৩টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। মোট ১৫টি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]দ্বিতীয় জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৭৯ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি দ্বিতীয় জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় । নির্বাচনে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি) ২০৭টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে। মোট ৩০টি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]তৃতীয় জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৮৬ সালের ৭ মে তৃতীয় জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে জাতীয় পার্টি ১৫৩টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে। বিএনপি এ নির্বাচন বর্জন করে। মোট ১৩টি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

 

[box type=”info” align=”” class=”” width=””]চতুর্থ জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৮৮ সালের ৩ মার্চ চতুর্থ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচন অধিকাংশ রাজনৈতিক দল বর্জন করে। ফলে জাতীয় পার্টি ২৫১টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে। নির্বাচনে মোট ছয়টি রাজনৈতিক দল অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

 

[box type=”info” align=”” class=”” width=””]পঞ্চম জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৯১ সালের ২৭ ফেব্রুয়ারি পঞ্চম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে দুটি প্রধান রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগ ও বিএনপিসহ প্রায় সব রাজনৈতিক দল অংশগ্রহণ করে। এ নির্বাচনে বিএনপি ১৪০টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে। মোট ২১টি রাজনৈতিক দল এতে অংশ নেয়।[/box]

 

 

[box type=”info” align=”” class=”” width=””]ষষ্ঠ জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৯৬ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি ষষ্ঠ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। অধিকাংশ রাজনৈতিক দল নির্বাচনটি বর্জন করায় বিএনপি ২৭৮টি আসন পেয়ে একতরফা জয়লাভ করে। মোট তিনটি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]সপ্তম জাতীয় সংসদ নির্বাচন১৯৯৬ সালের ১২ জুন সপ্তম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ১৪৬টি আসনে জয়লাভ করে। এটি ছিল তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে অনুষ্ঠিত প্রথম জাতীয় সংসদ নির্বাচন।মোট আটটি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]অষ্টম জাতীয় সংসদ নির্বাচন২০০১ সালের ১ অক্টোবর অষ্টম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচন অনুষ্ঠানের সময় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রধান ছিলেন লতিফুর রহমান। নির্বাচনে বিএনপি ১৯৩টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে। মোট ১৯টি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচন২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রধান উপদেষ্টা ফখরুদ্দিন আহমদের অধীনে এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ২৩০টি আসন পেয়ে জয়লাভ করে। মোট ১০টি রাজনৈতিক দল নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এ নির্বাচনে মোট ১৪৭টি আসনে ভোটগ্রহণ হয়। মোট ১৫৩টি আসনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হন আওয়ামী লীগসহ এর শরিকরা। মোট ১৭টি রাজনৈতিক দল এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে।[/box]

 

[box type=”info” align=”aligncenter” class=”” width=””]একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের সদস্য নির্বাচনের জন্য ১১তম সাধারণ নির্বাচন, যা ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ নিরঙ্কুশভাবে জয় পায়।[/box]

 

শেষ কথাঃ

 

আগামী নির্বাচন কত সালে হবে এই শিরোনামে আজকে অনেক আলোচনা হলো। অনেক তথ্য উপাত্ত শেয়ার করলেন। আমার শেয়ার করা কোন তথ্য কোন ভুল হলে। অতি সত্তর আমাদেরকে জানানোর অনুরোধ রইলো।  এছাড়াও যেকোন প্রয়োজনে আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *